ইয়াবা দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলেন নিজেই

ইয়াবা দিয়ে ফাঁসাতে গিয়ে ফেঁসে গেলেন নিজেই

শ্যামনগর উপজেলা অনলাইন নিউজ ক্লাবের সাংগঠনিক সম্পাদক ও দৈনিক সকালের আলো ২৪ ডটকম (অনলাইন ভিত্তিক পোর্টাল) এর কথিত সম্পাদক ও প্রকাশক মোহাম্মাদ আলী চৌধুরী (২৫) আটক হয়েছে। সে শ্যামনগর থানার হায়বাতপুর গ্রামের বারেক আলী চৌধুরীর ছেলে।
মোঃ সুজন শেখ (২৭), পিতা- শেখ শওকত আলী, গ্রাম- নকিপুর মাজাট, ২। মাছুম (২০), পিতা- ডাঃ আব্দুল মজিদ, সাং- বাদঘাটা, ৩। ইয়াছিন(১৮), পিতা- আলমগীর, নকিপুরস্থ জনৈক আজিজুল এর ভাগ্নে, সর্বথানা- শ্যামনগর, জেলা- সাতক্ষীরাগণ অদ্য ০৪/০৮/২০১৯ খ্রিঃ তারিখ বিকাল ৪.০০ ঘটিকার সময় শ্যামনগর বাসষ্ট্যান্ড এর পার্শ্বে এফ.এম মার্কের্টের ডাচ্ বাংলা ব্যাংকের এটিএম বুথের সামনে থেকে ভিকটিম ইয়াছিন (১৮), পিতা- রফিকুল ইসলাম গাজী, সাং- কুলতলী (মুন্সিগঞ্জ), শ্যামনগর, সাতক্ষীরাকে মারধর করতঃ মোটর সাইকেল যোগে শ্যামনগর জমিদার বাড়ী ভুলোর মোড় নামক স্থানের পাশে মাজাটগামী কালভাটের উপরে নিয়ে যায়। পরবর্তীতে উক্ত কথিত সাংবাদিক মোহাম্মদ আলী শ্যামনগর থানায় মোবাইল ফোনের মাধ্যমে জানায় যে, ভিকটিম ইয়াছিন এর কাছে ০৫ পিচ ইয়াবা ট্যাবলেট পাওয়া গেছে। তাৎক্ষনিকভাবে শ্যামনগর থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে ঘটনার বিষয়ে সন্দেহ হওয়ায় ভিকটিম ইয়াছিন ও কথিত সাংবাদিক মোহাম্মদ আলীদ্বয়কে থানায় নিয়ে আসে। ঘটনার বিষয়ে শ্যামনগর থানার অফিসার ইনচার্জকে অবহিত করে এবং আরো বিস্তারিত অনুসন্ধান পূর্বক জানতে পারেন ঘটনাটি সাজানো। এ ঘটনার বিষয়ে মোঃ ইয়াছিন আলম সুমন (১৮), পিতা- রফিকুল ইসলাম গাজী, সাং- কুলতলী (মুন্সিগঞ্জ), শ্যামনগর, সাতক্ষীরা বাদী হয়ে আসামী কথিত সাংবাদিক (১) মোহাম্মাদ আলী চৌধুরী (২৫), পিতা- বারেক আলী চৌধুরী, সাং- হায়বাতপুর শেখ পাড়া, (২) মোঃ সুজন শেখ (২৭), পিতা- শেখ শওকত আলী, গ্রাম- নকিপুর মাজাট, (৩) মাছুম (২০), পিতা- ডাঃ আব্দুল মজিদ, সাং- বাদঘাটা, (৪) ইয়াছিন(১৮), পিতা- আলমগীর, গ্রাম-নকিপুর, সর্ব থানা-শ্যামনগর, জেলা-সাতক্ষীরাসহ আরো অজ্ঞাত নামা ২/৩ জনের বিরুদ্ধে শ্যামনগর থানায় অভিযোগ দাখিল করলে শ্যামনগর থানার মামলা নং-০৪ তারিখ-০৪/০৮/২০১৯ খ্রিঃ ধারা-১৪৩/৩২৩/৩৬৪/৩৮৫/৫০৬/৩৪ পিসি এবং মামলা নং-০৫/ তারিখ-০৪/০৮/২০১৯ খ্রিঃ ধারা- ২০১৮ সনের মাদক দ্রব্য নিয়ন্ত্রণ আইন এর ৩৬(১) এর টেবিলের ১০(ক)/৪১ রুজু করা হয়। এজাহারনামীয় আসামী কথিত সাংবাদিক মোহাম্মাদ আলী চৌধুরী থানা হেফাজতে আছে। অন্যান্য আসামীদের গ্রেফতারে জোর প্রচেষ্টা অব্যাহত আছে।

এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন