শেখ হাসিনার ভ্যানগার্র্ড হিসেবে দেশ গড়ার কাজে ছাত্রলীগকে অগ্রণী ভূমিকায় থাকতে হবে- এমপি বাবু

শেখ হাসিনার ভ্যানগার্র্ড হিসেবে দেশ গড়ার কাজে ছাত্রলীগকে অগ্রণী ভূমিকায় থাকতে হবে- এমপি বাবু

শাহজাহান সিরাজ, কয়রাঃ খুলনা- ৬ (কয়রা পাইকগাছার) জাতীয় সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মোঃ আকতারুজ্জমান বাবু বলেন, দেশে এখন আওয়ামীলীগ সরকারের উন্নয়নের জোয়ার বইছে। দেশ এখন ইন্নয়নের মহাসড়কে আছে কয়রা-পাইকগাছাও পিছিয়ে নেই। সেই উন্নয়নের মহা যাত্রায় বাংলাদেশের অগ্রযাত্রাকে এগিয়ে নিতে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান যে পথ দেখিয়েছেন, যে আদর্শ রেখে গেছেন সেই পথ ধরেই দেশ গড়ার কাজে ছাত্রলীগকে শেখ হাসিনার ভ্যানগার্ড হিসেবে অগ্রণী ভূমিকায় থাকতে হবে। শনিবার বিকাল ৪টায় কপোতাক্ষ কলেজ মাঠে বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ৭৩ তম প্রতিষ্ঠাতা বার্ষিকী উৎযাপন উপলক্ষে কয়রা উপজেলা ছাত্রলীগের ছাত্র-সমাবেশের আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন। তিনি আরও বলেন, যে কোন আন্দোলন- সংগ্রামের কর্মসুচি মাঠ পর্যায়ে বাস্তবায়নের কাজ বঙ্গবন্ধু ছাত্রলীগের উপর অর্পন করতেন। জয়বাংলা শ্লোগানের মাধ্যমে মানুসকে জাগ্রত করার দায়িত্ব দিয়েছিলেন ছাত্রলীগকে। এসব অবদানের কথা ভেবেই একটা নীতি নিয়ে, আদর্শ নিয়ে ছাত্রলীগের প্রতিটি নেতাকর্মীকে পরিচালিত হতে হবে। আমি নিজেই ছাত্রলীগের মাধ্যমে রাজনীতি শুরু করেছি। এমপি এটি আমার বড় পরিচয় নয়। আমার বড় পরিচয় বঙ্গবœধুর হাতে গড়া প্রিয় সংগঠন ছাত্রলীগের একজন কর্মী ছিলাম। ১৯৮৩ সাল থেকে ২০০২ সাল পর্যন্তছাত্রলীগের বিভিন্ন পর্যায়ে গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্ব পালন করেছি। ছাত্র রাজনীতি করার সময় অসংখ্যবার গ্রেফতার হয়েছি , জেল কেটেছি কিন্তু রাজনীতি ছাড়েনি। মৃত্যুর আগ পর্যন্ত বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ধারণ করে মানুষের সেবা করে যেতে চাই। উপজেলা ছাত্রলীগের মোঃ সভাপতি শরিফুল ইসলাম টিংকুর সভাপতিত্বে ও সাধারন সম্পাদক আমিনুল ইসলাম বাদলের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন কয়রা-পাইকগাছার সংসদ সদস্য আলহাজ্ব মোঃ আক্তারুজ্জামান বাবু। বিশেষ অতিথি ছিলেন জেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এস এম খালেদ্বীন রশিদী সুকর্ন, জেলা মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব এ্যাডঃ কেরামত আলী, কয়রা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি জিএম মোহসিন রেজা, পাইকগাছা উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইকবাল মন্টু, কয়রা উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক বিজয় কুমার সরদার ও কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সহ সম্পাদক আফি আজাদ বান্টি। প্রধান বক্তা ছিলেন জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পারভেজ হাওলাদার। এ উপলক্ষে আলোচনা সভায় বক্তব্য রাখেন কয়রা উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা এস এম বাহারুল ইসলাম, জাফরুল ইসলাম পাড়, অধ্যক্ষ অদ্রিশ আদিত্য মন্ডল, সরদার হারুন অর-রশিদ, প্রভাষক শাহাবাজ হোসেন, আঃ সামাদ,নির্মল কুমার দাস, জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি মোঃ মারুফ হুসাইন ও আবু সাইদ খান, রফিকুল ইসলাম লিখন, যুগ্ম সাধারন সম্পাদক মৃনাল কান্তি বাছাড়, সাংগঠনিক সম্পাদক আতিকুর রহমান আতিক, দপ্তর সম্পাদ বাধন হালদার, অপ্যায়ন সম্পাদক শেখ মোঃ রাসেল, মুক্তিযোদ্ধা সম্পাদক শিমুল দেবনাথ, চিন্ময় রায়, সদস্য আবু দাউদ রনি, মিঠুন মন্ডল, সাইফুল ইসলাম, যুবলীগ নেতা এ্যাডঃ আরাফাত হোসেন, কয়রা উপজেলা ছাত্রলীগের সাবেক আহবায়ক ইমদাদুল হক টিটু, উপজেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি তরিকুল ইসলাম, সাংগঠনিক সম্পাদক মাসুদুর রহমান সিফার, ছাত্রলীগ নেতা বিল্লু, রাজা ,নিতিশ, মোস্তাফিজুর রহমান, অপু মন্ডল, ইসমাইল, সেলিম, সাব্বির, উজ্জল, তুহিন প্রমুখ। অনুষ্ঠানে উপজেলা আওয়ামীলীগ ও তার সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ সহ কয়রা উপজেলা ছাত্রলীগের বিভিন্ন ইউনিটের নেতাকর্মিরা উপস্থিত ছিলেন। আলোচনা শেষে এক মনোমুগ্ধকর সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করেন উপস্থিত সকলেই।

Print Friendly, PDF & Email
এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন