রবিবার, ২৬ জুন ২০২২, ০৪:৪৩ অপরাহ্ন

মিথ্যা মামলা থেকে বাঁচতে চায় শ্যামনগরে অসহায় জেলেরা

আব্দুল কাদের, শ্যামনগর / ৬৫
প্রকাশের সময় : সোমবার, ২৩ মে, ২০২২

শ্যামনগরে গত ইংরেজি  ১২/০৫/২০২২ তারিখে পল্লী প্রাইভেট হাসপাতালে অবৈধ ভাবে গর্ভপাত করার কারনে সামিরুন খাতুন (২৭) নামে এক প্রসূতি মা ও ৭ মাসের শিশু সন্তানের মৃত্যু হয়। সেই ঘটনায় ১০ জনকে আসামী করে শ্যামনগর থানায় একটি মামলা ও হয়েছে। মামলা করেছে মৃত্যু সামিরুনের স্বামী জাহাঙ্গীর শিকারী মামলা নং-২৮। পরবর্তীতে ১৯/০৫/২০২২ তারিখে  রমজাননগর ইউনিয়নের টেংরাখালী গ্রামের জহুর আলী গাজীর দুই ছেলে আব্দুল রাজ্জাক ও আব্দুল আলিম সহ মোট ১১ জনকে জড়িয়ে  বিজ্ঞ আমলী আদালত নং ০৫ সাতক্ষীরায় একটি মিথ্যা ভিত্তিহীন  মামলা দায়ের করেছেন।মামলার বাদী অর্থলোভী  হালিমা বেগম। এ বিষয়ে আব্দুল রাজ্জাক ও আব্দুল আলিমের কাছে জানতে চাইলে বলেন আমরা দুই ভাই  সুন্দরবনের মৎস্য আহরণ করে জীবিকা নির্বাহ করি। আমরা পেশায় একজন জেলে। আমরা কৈখালী ফরেস্ট স্টেশন থেকে ১১/০৫/২০২২ তারিখে  বৈধ পাশপারমিট নিয়ে সুন্দরবনে মৎস্য আহরনের কাজে নিয়জিত ছিলাম। আমরা দুই ভাই  ১১ দিন পরে গতকাল শনিবার   ২২/০৫/২০২২ তারিখে সুন্দরবন থেকে মৎস্য আহরনের কাজ শেষ করিয়া সুন্দরবন থেকে  উঠে আসি।  আমাদের আহরন কৃত সাদা মাছ নিয়া শ্যামনগর উপজেলার সোনার মোড়ে সাদা মাছের আড়ত মেসার্স মদিনা ফিসে বিক্রি করি । মাছ বিক্রি করে বাড়িতে আসিয়া জানতে পারিলাম আমাদের দুই ভাইয়ের নামে  বিজ্ঞ আমলী আদালত নং ০৫ সাতক্ষীরায় একটি মিথ্যা ভিত্তিহীন মামলা হয়েছে যার কোন ভিত্তি নেই ।  অবিলম্বে মিথ্যা মামলা বাজ ও হয়রানি কারি  হালিমাকে আইনের আওতায় আনিয়া সত্য উদঘাটন করার জোর দাবি জানিয়েছেন অসহায় জেলে রাজ্জাক ও আলিম সহ এলাকাবাসী। এই ধরনের মিথ্যা ভিত্তিহীন মামলা থেকে রেহাই পেতে বিজ্ঞ আদালত সাতক্ষীরা ও  পুলিশ সুপার মহোদয়   সহ সকল প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ কামনা করছে এলাকাবাসী।


এই শ্রেণীর আরো সংবাদ