HEADLINE
সাতক্ষীরার পর এবার মাগুরার সিভিল সার্জনের বিরুদ্ধে জনবল নিয়োগে অনিয়মের অভিযোগ! কলারোয়ায় এক কৃষকের ঝু’ল’ন্ত লা’শ উ’দ্ধা’র কলারোয়ায় স্বামীর পুরুষা’ঙ্গ কে’টে দ্বিতীয় স্ত্রী’র আ’ত্ম’হ’ত্যা কলারোয়ায় স্বামীর পুরুষা’ঙ্গ কে’টে দ্বিতীয় স্ত্রী’র আ’ত্ম’হ’ত্যা বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তন : বর্তমান অবস্থা ও ভবিষ্যৎ ৫ দিন পর ভোমরায় আমদানি-রপ্তানি কার্যক্রম শুরু দেবহাটায় পাল্টাপাল্টি মারপিটে ইউপি চেয়ারম্যান ও আ’লীগ সভাপতি সহ আহত ৫ সাতক্ষীরা সীমান্তে নয়টি স্বর্ণের বার’সহ চোরাকারবারি আটক সাতক্ষীরায় চেতনানাশক স্প্রে করে দুই পরিবারের নগদ টাকা ও স্বর্ণালংকার লুট আশাশুনির কোপাত বাহিনীর প্রধান কারাগারে
মঙ্গলবার, ২৩ এপ্রিল ২০২৪, ০৯:৪৩ পূর্বাহ্ন

জলে যাচ্ছে কোটি কোটি টাকার পুনঃখনন প্রকল্প, ভাঙছে পুটিমারি খালের বেড়িবাঁধ

দেবহাটা প্রতিনিধি / ২৫৭
প্রকাশের সময় : সোমবার, ১২ জুন, ২০২৩

সীমাহীন দুর্নীতি ও অনিয়মের ফলে পুনঃখনন শেষ হতে না হতেই জোয়ারের তোড়ে ভাঙতে শুরু করেছে দেবহাটা উপজেলার কুলিয়া ও পারুলিয়া ইউনিয়নের সীমানা ঘেঁষে বয়ে চলা পুটিমারি খালের বেড়িবাঁধ। এতে করে আতঙ্কিত হয়ে পড়েছেন আশপাশের কয়েকটি গ্রামের বাসিন্দারা।

সোমবার সরেজমিনে পরিদর্শনকালে কুলিয়া ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য বিধান চন্দ্র সরদার সহ স্থানীয় বাসিন্দারা জানান, চলতি বছরের শুরুতেই পুটিমারি খালসহ কুলিয়া ইউনিয়নের বেশ কয়েকটি খাল পুনঃখননের কাজ শুরু করে সাতক্ষীরা পানি উন্নয়ন বোর্ড। কিন্তু সরকারি নীতিমালার তোয়াক্কা না করেই পানি উন্নয়ন বোর্ডের দুই সেকশনার অফিসার (এস.ও) সাইদুজ্জামান রনি ও সাইদুর রহমানের যোগসাজোসে খাল পুনঃখননে ব্যাপক দুর্নীতি ও অনিয়ম করেন সংশ্লিষ্ট ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান গুলো। দিনের পর দিন খাল পুনঃখননে সীমাহীন দুর্নীতি ও অনিয়ম হলেও ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের কাছে চুক্তিবদ্ধ থাকায় এসব অনিয়ম দেখেও দেখতেননা তদারকির দায়িত্বে থাকা এসও সাইদুজ্জামান রনি ও সাইদুর রহমান। এমনকি সঠিক ভাবে খাল পুনঃখননের জন্য এলাকাবাসি ও স্থানীয় জনপ্রতিনিধিদের পক্ষ থেকে বারবার বলা হলেও তাতে কর্ণপাত করতেননা আঙ্গুল ফুলে কলাগাছ বনে যাওয়া পানি উন্নয়ন বোর্ডের এ দুই কর্মকর্তা। পরে তাদের দুজনকে শাস্তিমুলোক বদলী করে পানি উন্নয়ন বোর্ড। স্থানীয়রা আরও জানায়, পুনঃখননে সরকারি নিয়ম না মানায়, পনঃখনন পরবর্তী বর্তমানে মিলছেনা খালের পরিমাপ। খালটির একপাশ থেকে অপর পাশ পর্যন্ত (টপ টু টপ)  গড় ৭১ ফুট প্রশস্ত করে খননের নির্দেশ থাকলেও তা গড়ায়নি ৫০ ফুটের উর্দ্ধে। এতে করে পুনঃখননের পর দৃশ্যত পূর্বের তুলনায় ছোট হয়েছে এসব খাল। শুধু তাই নয়, প্রায় দু’মাস আগে পুনঃখনন কার্যক্রম পুরোপুরি শেষ হওয়ার আগেই দুর্নীতি-অনিয়ম ঢাকতে পানি উন্নয়ন বোর্ডের দুর্নীতিগ্রস্ত তৎকালীন দুই এসও’র যোগসাজোসে রাতারাতি খাল গুলোতে পানি ঢুকিয়ে দেন ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠানের লোকজন। সম্প্রতি পুনঃখননকৃত এসব খালের পরিমাপ মেলাতে খালের বেড়িবাধের উপরিভাগের মাটি ছেঁটে নতুন করে বেড়িবাঁধ ঢালু করছেন সংশ্লিস্টরা। দুর্নীতি-অনিয়মের একই চিত্র দেখা দিয়েছে কুলিয়ার লাবণ্যবতী খাল পুনঃখননেও। একদিকে দুর্নীতি আর অন্যদিকে ধীরগতিতে পুনঃখনন কাজ চলায় গেল কয়েকমাস ধরে দূর্ভোগ, দূর্দশা আর পানি সংকটে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছেন কুলিয়া ইউনিয়নের হাজার হাজার মৎস্য ঘের মালিক। সীমাহীন দুর্নীতি-অনিয়মের ফলে একদিকে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে পুটিমারি খালের আকার, আয়তন; তেমনি প্রবল জোয়ারের তোড়ে প্রতিনিয়ত ভাঙছে এর বেড়িবাঁধের বেশ কয়েকটি পয়েন্ট। ভাঙনে বিলীন হতে বসেছে প্রত্যন্ত জনপদ পুটিমারি প্রাইমারি স্কুলগামি একমাত্র রাস্তাটিও। সেজন্য অবিলম্বে ভাঙনরোধে কার্যকর পদক্ষেপ গ্রহণের দাবি জানিয়েছেন এলাকাবাসি।


এই শ্রেণীর আরো সংবাদ