কেশবপুরে মোবাইল গেমসের আসক্তিতে শিশুরা

কেশবপুরে মোবাইল গেমসের আসক্তিতে শিশুরা

উৎপল দে,কেশবপুরঃ যশোরের কেশবপুরে মোবাইল গেমসের আসক্তিতে পরেছে শিশুরা।সকাল ও বিকালে দলবদ্ধ হয়ে মোবাইলে গেমস ও লুডু, দাবা ক্যারাম সহ নানা রকম খেলা করছে এছাড়া বিভিন্ন ভিডিও দেখছে। এতে করে শিশুরা গেমসের নেশায় জড়িয়ে পরছে বলে অভিযোগ অভিভাবকদের। এতে নষ্ট হচ্ছে তাদের নৈতিকতা।

উপজেলার বিভিন্ন পাড়ায় এ গেমস খেলতে দলবদ্ধ শিশুরা। সরোজমিন গিয়ে যায় উপজেলার নারায়ণপুর বাজার থেকে আগে। বাঁয়ে ইটের সোলিং দুই তিন মিনিট গেলেই বাগান।মোবাইলে তখন সকাল সাড়ে আট টা। নারকেল গাছ আর আম গাছ তলাতে নিচে চরাট আর উপরে পলিথিন ।ছয় সাত জন তরুন বালক।কেউ বা খালি পায়ে, আবার কেউবা খালি গায়ে। সকলের মনোযোগ দুই হাতে দিকে।প্রত্যেকের হাতে এন্ডুয়েড মোবাইল সেট। কথা বলে জানা যায় স্কুল বন্ধ তাই অলস সময় মোবাইলে গেমস খেলে পার করছেন।

কেশবপুর থেকে বেলতলা যেতে বেগমপুর বিল। রাস্তার দুই পাশে বালকদের ভীড়। একই অবস্থা মজিদপুর ব্রিজের উপর, আলতাপোল কাশেমের দোকানের সামনে, মাছ বাজারে, হাসানপুর স্কুল মাঠে, খ্রিষ্টান পিছনে শিশু-কিশোর আর তরুনদের হাতে মোবাইল ফোনে গেমস খেলছে। শহরের বিভিন্ন পাড়া মহল্লায় ও পল্লীতে দলেদলে বসে মোবাইলে ফ্রী-ফায়ার,পাবজিসহ বিভিন্ন ধরনের ভিডিও গেমস খেলায় ব্যস্ত এসব শিশু-কিশোররা। এখন আর সকাল বিকাল মাঠে তেমন একটা ফুটবল বা ক্রিকেট খেলা করতে দেখা যায় না।শিশু-কিশোর আর তরুণদের এখন আর খেলার মাঠে হৈ-চৈ করতে দেখা যায় না। একাধিক অভিভাবক বলেন করোনা কালীন সময়ে স্কুল-কলেজ বন্ধ হওয়াই শিক্ষার্থীরা ঝুকে পড়ছে ভিডিও গেমস খেলায়।

এ ব্যাপারে সম্মিলিত সাংস্কৃতিক জোটের সাধারণ সম্পাদক প্রভাষক মশিউর রহমান বলেন ইদানীং শিশুদের ভিডিও গেমস খেলতে দেখা যাচ্ছে। এতে করে অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের নিয়ে চিন্তিত।

Print Friendly, PDF & Email
এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন