শনিবার, ২৪ জুলাই ২০২১, ০৪:২১ পূর্বাহ্ন

কলারোয়ায় পরকিয়া ও যৌতুকের প্রতিবাদ করায় স্ত্রীকে জখম করলো স্বামী

হাবিবুল্লাহ বাহার / ২৩৪
প্রকাশের সময় : শুক্রবার, ৯ জুলাই, ২০২১

সাতক্ষীরা জেলার কলারোয়ার উপজেলার জয়নগরের কৃপারামপুর(নয়াপাড়া) স্বামীর পরকিয়া ও যৌতুক দাবির প্রতিবাদ করায় স্ত্রী শাজেদা খাতুনকে মারাত্বক ভাবে জখম করেছে পাষন্ড স্বামী নাছির মোড়ল।সরেজমিনে শিংহলাল আহত সাজেদা খাতুনের বাবার বাড়িতে গেলে তিনি নিজ মুখে সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, ধানদিয়া চৌরাস্তার পাশ্ববর্তী গ্রাম কৃপারামপুর ( নয়াপাড়া) মৃত ওবাইদুল্লাহ মোড়লের ছেলে নাছির মোড়ল (৩৫) দীর্ঘ ১১বছর আগে ইসলামীী শরিয়াহ মোতাবেক বিবাহ হয়, কলারোয়ার শিংহলাল গ্রামের সফেদ আলী গাজীর মেয়ে শাজেদা খাতুনের(২৫)সাথে। বিবাহের বছর ঘুরতে না ঘুরতে, নানা কারণ যেমন,যৌতুকের দাবি,স্বামীর পরকিয়া সাংসারিক কাজ নিয়ে নাছির মোড়ল তার স্ত্রী সাজেদা খাতুনকে শারিরীক ভাবে নির্যাতন করতে থাকে, প্রতিবাদ করেও কোন লাভ হয়নি। গত মঙ্গলবার ৬ জুন সন্ধ্যার কিছুক্ষন আগে যৌতুকের টাকা ও স্বামীর পরকিয়ার বিষয়ে, স্বামী ও স্ত্রীর মধ্যো ঝগড়া চলার এক পর্যায়ে স্বামী নাছির মোড়ল তার স্ত্রীকে (ডাইস) রাজমিস্ত্রীর কাজে ব্যাবহৃত যন্ত্রাংশ, ঝাটা দিয়ে পেটাতে থাকে। এমনকি তার সামনে থাকা ইট দিয়ে স্ত্রী সাজেদা খাতুনের মাথায় আঘাত করে,সেই আঘাতে স্ত্রীর মারাত্বক ভাবে জখম হয়।তারপরও পাষান্ড স্বামী থেমে থাকেনি, জখম অবস্থায় স্ত্রীকে গলা টিপে হত্যার চেষ্টা করেন হয় বলে জানিয়েছেন তিনি।গলার বেশ কয়েকটি জায়গায় ক্ষত বিক্ষতের চিহ্ন লক্ষ করা গেছে।সেখান থেকে আহত সাজেদা খাতুনকে তার পিতা মাতা উদ্ধার করে কলারোয়া থানা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স হাসপাতালে ভর্তি করেন।আরও জানিয়েছেন স্বামী নাছির মোড়লের পরকিয়ার সম্পর্কে,পাটকেলঘাটার গড়েরডাংগা গ্রামের সাথী আক্তারের সাথে গত দেড় মাস আগে বাড়ি থেকে পালিয়ে যান স্বামী নাছির মোড়ল।

ঘটনাটির বিষয়ে নাছির মোড়লের কাছে জানতে চাইলে তিনি জানান, সাথী আক্তারের সাথে তার পরকিয়ার সম্পর্ক সত্য, তবে এখন আর সম্পর্ক নেই বলে জানিয়েছেন। কিন্তু দীর্ঘদিন ধরে স্ত্রীকে নির্যাতন ও যৌতুকের দাবির টাকার বিষয়টি সত্য নয় বলে দাবি করেন তিনি।অন্যদিকে কৃপারামপুর গ্রামের একাধিক ব্যক্তি নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক, তারা জানিয়েছেন নাছির মোড়ল প্রচন্ড রাগী ও বদমেজাজি। নানা কারণে স্ত্রীকে মারধর করতো।মং তারিখের স্বামী/ স্ত্রীর মারপিটের ঘটনায় প্রতিবেশি কয়েকজন ঠেকাতে আসলে নাছির মোড়লের আক্রমনের শিকার হয়েছেন তারা, তার মধ্যো একজনের চোখের পাশে ক্ষত সৃষ্টি হয়েছে, অন্যজনের হাত ভেঙ্গে গেছে।এমনি আগ্রাসি ব্যাবহার ও অকথ্য ভাষায় গালি গালাজের কারণে প্রতিবেশিরা ঐ পরিবারটিকে এড়িয়ে চলে। কিন্তু সেদিনের ঘটনার বিষয়টি মর্মান্তিক ছিলো যার করণে প্রতিবেশিরা ছুটে আসে তারি ফলশ্রুতিতে আহত হয় বেশ কয়েকজন। যৌতুকের দাবি, শারিরীক নির্যাতনের ঘটনার বিষয়ে সাজেদা খাতুন বাদি হয়ে কলারোয়া থানায় একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন।


এই শ্রেণীর আরো সংবাদ