HEADLINE
পরিবারের সবাইকে অজ্ঞান করে ১০ লক্ষ টাকার মালামাল লুট! বাংলাদেশের মেয়েরা এখন আর পিছিয়ে নেই এমপি রুহুল হক ভোমরায় পাসপোর্ট যাত্রীদের তল্লাশির নামে বিজিবির হয়রানি সাতক্ষীরা পৌরমেয়র চিশতিসহ পৌর বিএনপির ১০ নেতা আটক শাশুড়ির কামড়ে জামাইয়ের কান ও জামাইয়ের কামড়ে শাশুড়ির হাতের শিরা বিছিন্ন কালিঞ্চী এ. গফ্ফার মাধ্যঃ বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির নির্বাচন বন্দে আদালতে মামলা বৈকারীতে ১’শ পিস ইয়াবাসহ চোরাকারবারি গ্রেপ্তার রাত পোঁহালেই দেবহাটা প্রেসক্লাবের নির্বাচন সাতক্ষীরায় ছাত্রলীগ নেতাকে অস্ত্রকান্ডে ফাঁসিয়ে ভারতে পালালেন মূলহোতা নির্বাচন নিয়ে ভাবার কিছু নেই, আমরা গণতান্ত্রিক দল : সাতক্ষীরায় আ.ক.ম মোজাম্মেল হক
বৃহস্পতিবার, ০৬ অক্টোবর ২০২২, ০৬:৪৮ পূর্বাহ্ন

কলারোয়ায় গভীর রাত পর্যন্ত চলছে জুয়ার আসর : সাথে চলে মাদক বিক্রি

নিজস্ব প্রতিবেদক / ১১৯
প্রকাশের সময় : সোমবার, ৮ আগস্ট, ২০২২

প্রশাসনকে বৃদ্ধা আঙ্গুল দেখিয়ে সাতক্ষীরার কলারোয়া উপজেলার ১১নং দেয়াড়া ইউনিয়নের কাশিয়াডাঙ্গা বাবুলের ঘেরে দিনে দুপুরে প্রকাশ্যেই চলছে জুয়ার আসর। সাথে চলছে মাদক বিক্রি।

এ জুয়ার আসরে দূর-দূরন্ত থেকে লোক সমাগম হচ্ছে। খুলনা, যশোর ও সাতক্ষীরার কালীগঞ্জ, শ্যামনগর, আশাশুনিসহ বিভিন্ন জায়গা থেকে জুয়াড়ীরা এসে খেলায় অংশগ্রহন করছে। এ ঘটনায় স্থানীয় এলাকাবাসীসহ সচেতন মহল ক্ষোভ প্রকাশ করে অতিবিলম্বে জোয়ার আসর ভেঙে গুরিয়ে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন।

অভিযোগ উঠেছে দেয়াড়া ইউনিয়নের কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের বিএনপি নেতা ফজলা মোড়লের ছেলে রেজাউল করিম, পুটুলিয়া গ্রামের নিতাই ঘোষের ছেলে সনাতন ঘোষ, আনিছুর রহমান, ঝিকরগাছা উপজেলার মটসিয়া গ্রামের আব্দুল আলিমের নেতৃত্বে চলেছে রমরমা জুয়ার আসর। পাশাপাশি মাদক বিক্রি ও ( মদ, গাজা, ইয়াবা) মাদক সেবন চলছে।


সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায় এখানে খেলতে আসা বেশিরভাগই উচ্চবৃত্ত মানুষ। দূর দূরস্থ থেকে বিত্তশালী বহিরাগতদের নিয়ে দিনের বেলায় লক্ষ লক্ষ টাকার বাঁজি ধরে তাসের আড্ডা বসিয়ে চলছে বাণিজ্য। আর রাতে চলছে ছোট জুয়া। সেই সাথে চলছে মাদক সেবনের মহা উৎসব নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক খেলতে আসা এক জুয়াড়ি জানান, কয়েকজন প্রভাবশালী নেতা ও খোর্দো ফাড়ির এসআই ফিরোজকে ম্যানেজ করে খেলা চলছে। স্থানীয় এলাকাবাসী ও সচেতন মহলের ব্যক্তিরা জানান, প্রকাশ্যেই দিনে দুপুরে জুয়ার আসর চললেও পাশেই খোর্দো ফাঁড়ি তাদের কোন তৎপরতা দেখছিনা। ইদানিং দেখা যাচ্ছে এই জুয়ার বোর্ডের আসর গুলোতে নামি-দামি মোটরসাইকেল ও প্রাইভেটকার নিয়ে যুবকদের আনাগোনা আগের চেয়ে অনেক বেশি। গভীর রাত পর্যন্ত এ জুয়ার আড্ডায় দেখা যাচ্ছে। এসবের কারণে এলাকার চুরি ছিনতাই মাদক সেবনসহ বিভিন্ন অপরাধ সংক্রান্ত কার্যক্রম বেড়েই চলছে। এমনভাবে চলতে থাকলে যুবসমাজ ধ্বংসের পথে চলে যাবে। এ জুয়ার কারনে পারিবারিক ভাবে বহু পরিবারের মাঝে অশান্তি বিরাজ করছে।
কাশিয়াডাঙ্গা গ্রামের নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন ব্যাক্তি জানান, এখানে জুয়ার বিরুদ্ধে কথা বললে আমাদের বিভিন্নভাবে হুমকি ও পুলিশের ভয় দেখায় কতিপয় ব্যক্তিদ্ধয়। এবিষয়ে সাতক্ষীরা পুলিশ সুপারের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করে অতিবিলম্বে এ জুয়ার আসর বন্ধ করে দেওয়ার দাবি জানিয়েছেন এলাকাবাসী।


এই শ্রেণীর আরো সংবাদ