কপিলমুনি ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশের বিরুদ্ধে এবার প্রধানমন্ত্রী ও পুলিশের আইজিপি বরাবর অভিযোগ

কপিলমুনি ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশের বিরুদ্ধে এবার প্রধানমন্ত্রী ও পুলিশের আইজিপি বরাবর অভিযোগ

কপিলমুনি প্রতিনিধিঃ নানা অপকর্মে দুষ্ট কপিলমুনি ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশের বিরুদ্ধে এবার সয়ং প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশ পুলিশের মহাপুলিশ পরিদর্শক (আইজিপি) বরাবর তার অর্থ লিপসার  অপকর্মের ব্যাখ্যা দিয়ে লিখিত অভিযোগ করেছেন আওয়ামী মহিলালীগ নেত্রী রাবেয়া বেগম। লিখিত অভিযোগে সঞ্জয় দাশকে দুর্নীতিবাজ, চাঁদাবাজ ও ঘুষখোর আখ্যা দিয়ে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের মাধ্যমে উপযুক্ত শাস্তির দাবী জানিয়েছেন।

লিখিত অভিযোগে রাবেয়া বেগম উল্লেখ করেছেন, খুলনা জেলা পাইকগাছা উপজেলার কপিলমুনির পার্শ্ববর্তী প্রতাপকাটী গ্রামের আঃ সবুরের স্ত্রী তিনি। বর্তমান বাংলাদেশ আওয়ামী মহিলালীগের একজন নিবেদিত কর্মী। সম্প্রতি সময়ে একটি তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে কপিলমুনি ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশ ১২ এপ্রিল সন্ধ্যায় স্থানীয় সাংবাদিকদের বৈঠকের মধ্যে আমার স্বামীর উপস্থিতে আমাকে অশ্লীল ভাষায় গালিগালাজ ও আমার স্বামীর পেশা সম্পর্কে অশ্লালীন মন্তব্য করেন। একপর্যায়ে আমাকে জড়িয়ে বাংলাদেশ মহিলা আওয়ামীলীগ দল সম্পর্কেও কুরুচিপূর্ণ অশ্লীল ভাষা ব্যবহার করেন। লিখিত অভিযোগে রাবেয়া বেগম কপিলমুনি ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশ একজন দুর্নীতিবাজ, চাঁদাবাজ, ঘুষখোর ও জমিজমা দখলকে কেন্দ্র করে অর্থ বাণিজ্য শীর্ষ পুলিশ কর্মকর্তা হিসেবে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় তদন্ত পূর্বক উপযুক্ত আইনী ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার ও দলীয় সভানেত্রী শেখ হাসিনা ও বাংলাদেশ সরকারের মহাপুলিশ পরিদর্শক (আইজিপি) এর প্রতি জোর দাবী জানিয়েছেন। পাশাপাশি একই স্থানে একাধিক বছর চাকুরীর সুবাদে স্থানীয় প্রভাবশালী ব্যাক্তিদের সাথে সখ্যতা গড়ে তুলেছেন সঞ্জয় দাশ। স্থানীয় সাংবাদিকদের কাছে সরবরাহকৃত লিখিত অভিযোগে এমনটি দাবী করেছেন রাবেয়া বেগম। তবে সর্বপরী ঘটনার প্রেক্ষিতে তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সুচিন্তিত মতামত ব্যক্ত করেছেন সচেতন এলাকাবাসী ও সুধী সমাজের নেতৃবৃন্দ। এব্যাপারে জানতে চাইলে ভূক্তভোগী মহিলা নেত্রী রাবেয়া বেগমের স্বামী আঃ সবুর বলেন, লিখিত অভিযোগের উল্লেখিত বিষয়টি নিয়ে ফাঁড়ি ইনচার্জ সঞ্জয় দাশ আমার স্ত্রীর সাথে যে আচারণ করেছে তা অতি দুঃখজনক। আমি এ ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত পূর্বক প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জোর দাবি জানাচ্ছি।

Print Friendly, PDF & Email
এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন