এবার বেনাপোল ইমিগ্রেশন দিয়ে পার হলো করোনা যাত্রী

এবার বেনাপোল ইমিগ্রেশন দিয়ে পার হলো করোনা যাত্রী

টিটু মিলন বেনাপোল : ভারতে করোনাভাইরাস (কোভিড-১৯) সংক্রমিত এক ব্যক্তি যশোরের বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে দেশে ফিরেছেন। করোনা আক্রান্ত ওই ব্যক্তিকে যশোর বক্ষব্যাধি হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে। গত একবছরের মধ্যে এই প্রথম ভারত ফেরত কোনো ব্যক্তির শরীরে করোনা সংক্রমণ পাওয়া গেছে।শনিবার (৩ এপ্রিল) করোনা আক্রান্ত ওই ব্যক্তিকে বেনাপোল সীমান্ত দিয়ে দেশে আসেন। করোনা পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হওয়ায় তাকে ভারতীয় ইমিগ্রেশন পুলিশ বেনাপোল ইমিগ্রেশন বিভাগের কাছে হস্তান্তর করেছে। ইমিগ্রেশন থেকে যশোর বক্ষব্যাধি হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে তাকে।


জানা গেছে, কুষ্টিয়ার কুমারখালীর এই বাসিন্দা গত মাসে তার স্ত্রীর চিকিৎসার জন্য তাকে নিয়ে ভারতে গিয়েছিলেন। দেশে ফেরার জন্য কলকাতার একটি হাসপাতালে করোনা পরীক্ষা করালে তিনি পজিটিভ হিসেবে শনাক্ত হন।
বেনাপোল ইমিগ্রেশন স্বাস্থ্য বিভাগের মেডিকেল কর্মকর্তা সুভাশিষ রায় সারাবাংলাকে জানান, বাংলাদেশি ওই ব্যক্তি করোনা আক্রান্ত হওয়ায় ভারতীয় ইমিগ্রেশন পুলিশ তাকে বাংলাদেশ ইমিগ্রেশনের কাছে সোপর্দ করেছে। তার সঙ্গে থাকা ছাড়পত্রে দেখা গেছে, তিনি করোনা পজিটিভ। পরে ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে আলোচনা করে তাকে যশোর বক্ষব্যাধি হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।


এদিকে, ভারত থেকে আসা ব্যক্তির শরীরে করোনাভাইরাসের উপস্থিতি থাকার খবরে ইমিগ্রেশন এলাকায় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে। তবে ইমিগ্রেশন স্বাস্থ্য বিভাগ বলছে, তারা স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে সব কার্যক্রম চালিয়ে যাচ্ছেন। যিনি সংক্রমণ নিয়ে দেশে ফিরেছেন, তার জন্য প্রয়োজনীয় সব ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছে।সুভাশিষ রায় বলেন, করোনা সংক্রমণ প্রতিরোধে সতর্কতার সঙ্গে কাজ করছে ইমিগ্রেশন স্বাস্থ্য বিভাগ। এ নিয়ে যাত্রীদের উদ্বিগ্ন হওয়ার কারণে নেই।
এর আগে, গত বছরের ৮ মার্চ বাংলাদেশে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ শনাক্ত হওয়ার পর ১৩ মার্চ থেকে বাংলাদেশ-ভারতের মধ্যে পাসপোর্টধারী যাত্রীদের যাতায়াত বন্ধ করে দেয় ভারত। পরে তিন শর্তে গত ১৭ আগস্ট থেকে মেডিকেল ও বিজনেস ভিসায় যাত্রীদের যাতায়াত শুরু হয়।

Print Friendly, PDF & Email
এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন