আশাশুনি বাইনতলায় বৈদ্যুতিক ফাঁদে ফেলে ৩ টি গরু মেরে ফেলার অভিযোগ

আশাশুনি বাইনতলায় বৈদ্যুতিক ফাঁদে ফেলে ৩ টি গরু মেরে ফেলার অভিযোগ

জ্বলেমিন হোসেন, আশাশুনিঃ আশাশুনির বাইনতলায় বিদ্যুতের লাইনে বাধাইয়া ৩ টি গরু মেরে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। এ বিষয়ে থানায় এজাহার দায়ের করা হয়েছে।

থানার এজাহার সূত্রে জানা যায় বাইনতলা গ্রামের মৃত বাবর আলী মোল্যার ছেলে রফিকুল মোল্যা (৫৪) ও তার প্রতিবেশী মৃত নেছার উদ্দিন মোল্যার ছেলে মিয়ারাজ মোল্যা(৫৮) একই গ্রামের বাসিন্দা। ৩০/৩/২১ তারিখ রাত ১০.৩০ টার সময় রফিকুল মোল্যা ঘের থেকে বাড়ি এসে দেখে তার স্ত্রী একটি সাদা রঙের ছয় বছর বয়সের গাভিন গরু, ১ টি লাল রঙের ৪ বছর বয়সের গাভিন গরু ও ১ টি লাল রঙের ৩ বছরের বকনা গরু উঠানে বাধিয়া রেখেছে। তখন তিনি গরু তিনটি ছেড়ে দিতে বলে এবং গরু তিনটি ছাড়িয়া দেয়। কিন্তু প্রতিবেশী মিয়ারাজ মোল্যা পূর্বপরিকল্পিতভাবে গরু তিনটি মেরে ফেলার উদ্দেশ্যে তার বসত বাড়ির উত্তর পূর্ব পাশে মেলে ক্ষেতে বিদ্যুতের লাইনের ফাঁদ রেখে দেয়। গরু তিনটি তার ক্ষেতে গেলে তিনি তাড়াইয়া তার ফাঁদে ফেলে দেয়। তাৎক্ষনিকভাবে গরু তিনটি মরে যায়। যার আনুমানিক মুল্য ১ লক্ষ ১০ হাজার টাকা। ৩১/৩/২১ তারিখ ভোর হওয়ার পূর্বে তিনি গরু তিনটি নাড়া, কুটু দিয়ে ঢেকে রাখে। পরবর্ততীতে বিভিন্ন জায়গায় ফেলে দেয়। ১/৪/২১ তারিখ বেলা ১১ টার সময় নুর মোহাম্মাদ সানা তার ডোবার ভেতর সাদা গরুটি, আরশাদ সানার তার ডোবার ভেতর লাল গরুটি এবং জালাল মোল্যা তার ডোবার মধ্যে লাল বকনা গরুটি দেখতে পাই। পরবর্তীতে তারা তার ( রফিকুল মোল্যা) খবর দিলে এলাকার বিভিন্ন লোকদের নিয়ে গরু দেখতে যায়। এখনও গরু ৩ টি সেই ডোবায় আছে। এ বিষয়ে তিনি উর্দ্ধতন কর্তৃপক্ষের কাছে ন্যায় বিচারের দাবি জানান।

Print Friendly, PDF & Email
এই সংবাদটি আপনার বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন