HEADLINE
সাতক্ষীরায় যথাযোগ্য মর্যাদায় জাতীয় বীমা দিবস পালিত ছাত্র রাজনীতি এখন কোন দিকে ছওয়াব ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ”আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে যাকাতের ভূমিকা” শীর্ষক সেমিনার ঝাউডাঙ্গা ভূমি অফিসের তহসিলদারের বিরুদ্ধে নানা অনিয়মের অভিযোগ দাঁতভাঙা বিলে মৎস্য ঘের থেকে অজ্ঞাত নারীর লা’শ উদ্ধার মুখে মাস্ক পরে দেবহাটায় একরাতে ৪টি দোকানে চুরি ভাগ্য খুলতে পারে খুলনা জেলা ছাত্রলীগের! স্কুল ম্যানেজিং কমিটি গঠনে ব্যাপক অনিয়মের অভিযোগ সাতক্ষীরায় বেসরকারি ক্লিনিকে অভিযানে ভুয়া চিকিৎসকসহ দু’জনের কারাদণ্ড সাতক্ষীরা হার্ট ফাউন্ডেশনে সেবিকার কর্তব্য অবহেলায় বৃদ্ধার মৃ’ত্যুর অভিযোগ
শনিবার, ০২ মার্চ ২০২৪, ০৩:১৩ পূর্বাহ্ন

আশাশুনিতে ঘেরমালিককে জখম করে মাছ ছিনতাই

আশাশুনি প্রতিনিধি / ২৫৬
প্রকাশের সময় : শনিবার, ১৬ জুলাই, ২০২২

আশাশুনিতে ডিড নিয়ে মৎস্য চাষকারী ঘেরমালিককে জখম করে মাছ ছিনতাইয়ের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আহত ঘেরমালিক রোকনুজ্জামানকে আশাশুনি স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে। শনিবার (১৬ জুলাই) ভোর ৬ টার দিকে উপজেলার প্রতাপনগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটেছে।

প্রতাপনগর গ্রামের জহুরুল ইসলামের ছেলে আহত ঘেরমালিক রোকনুজ্জামান গাজী জানান, প্রতাপনগর গ্রামের শাহাবুদ্দীন গাজীর ছেলে আসলাম গাজী, মহসীন গাজী ও প্রয়াত বীর মুক্তিযোদ্ধা জামাত আলী গাজীর স্ত্রী মারুফা পারভীন তাদের প্রতাপনগর মৌজার ১ বিঘা জমি ২০২১ সালে মৌখিক ডিড প্রদান করেন। সেই থেকে তিনি শান্তিপূর্ণভাবে সেখানে মৎস্য চাষ করে আসছেন। এজমালি সম্পত্তি হওয়ায় আপোষে দখলে থাকা জমির মালিকানা নিয়ে বিরোধ হওয়ায় শাহাবুদ্দীন গাজীর অপর ছেলে ফজলুল হক ও তার বখাটে ছেলে কাহর আলী শনিবার ভোরে তান ঘেরে গিয়ে আটন ঝাড়তে থাকে। তিনি বাঁধা দিলে সে তাকে (রোকনুজ্জামান) পিটিয়ে রক্তাত্ব জখম করে আটনে থাকা মাছ ছিনতাই করে নিয়ে যায়। তার চিৎকারে পাশের লোকজনের সহায়তায় তাকে আশাশুনি হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। লুটকারী কাহর চিহ্নিত বাখাটে ও চোর হিসেবে এলাকায় পরিচিত। তাকে নিয়ে একাধিকবার সালিশ বৈঠক হয়েছে। এবং নারীঘটিত অভিযোগ রয়েছে। 

জমির মালিক বীর মুক্তিযোদ্ধা পত্নী মারুফা পারভীন ও আসলাম গাজী জানান, পারিবারিক আপোষ সিদ্ধান্তে উক্ত এক বিঘা জমিরর দখল বুঝে পেয়ে তারা রোকনুজ্জামানকে মৌখিক ডিড দেন। কাহর ও তার পিতা প্রায় দেড় বছর পরে আপোষ সিদ্ধান্তকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে ঞের জবর দখলের চেষ্টা, ঘেরমালিককে রক্তাত্ব জখম ও মাছ লুটের ঘটনা শাস্তিযোগ্য অপরাধ। এরিপোর্ট লেখা পর্যন্ত থানায় মামলার প্রস্তুতি  চলছিলো।


এই শ্রেণীর আরো সংবাদ